FriendsDiary.NeT | Friends| Inbox | Chat
Home»Archive»

তাসবীর দানা পর্ব : ০৩ পবিত্রতা: জান্নাতি গোসল

তাসবীর দানা পর্ব : ০৩ পবিত্রতা: জান্নাতি গোসল

*

ফজরের নামাজ শেষ।
স্ত্রীর সাথে একান্তে সময় কাটাচ্ছিলেন তিনি, বেজে উঠল উহুদ যুদ্ধের দামামা, এ যে সত্য মিথ্যার এক লড়াই, যার বুকে পৌছেছে সত্যের আলো সে কিভাবে এই ডাক কে অস্বীকার করে??
তিনি ছুটলেন!
যে অবস্থায় ছিলেন ঐ অবস্থাতেই,
ইতিহাস জানেনা, তখন ঐ বধুর চোখে জল ছিল কি না? কেউ বলতে পারে নি তার হৃদয়ে তখন কি চলেছিল! কিন্তু তিনি ছিলেন নির্ভীক! কারন তিনি তো সাওদাগর! যিনি সাওদা করেছিলেন জান্নাত কে, নিজের জীবনের বিনিময়ে!
তিনি শহীদ হলেন!
অথচ মাত্রই তিনি তার নববধুর কাছ থেকে ফিরেছিলেন। তার স্ত্রীর হাতের মেহেদীর রং তখনো শুকায়নি!
অথচ তার বুক রক্তে রঞ্জিত!
যারা আল্লাহ কে ভালোবাসে, যারা দীন কে ভালোবাসে তাদের কাছে দুনিয়ার ভালোবাসা তুচ্ছ হয়ে যায়!

যুদ্ধ শেষ, সাহাবীরা শহীদদের লাশ সংগ্রহ করছেন, কিন্তু একজনের লাশ খুজে পাওয়া যাচ্ছে না, সবাই তাকে যুদ্ধের ময়দানে দেখেছেন, দেখেছেন অসীম সাহসিকতায় বীর বিক্রমে লড়াই করতে, দেখেছেন শাহাদাতের অমীয় সূধা পান করতে! কোথায় গেল তার লাশ? সাহাবারা ছুটলেন রাসুল সাঃ কে জানাতে হবে।

আল্লাহর রাস্তায় যারা শহীদ হয় তাদের গোসল দেয়া হয় না! তার স্ত্রী সংকিত ভীত, স্বামী হারানোর শোকে নয়, তার স্বামী অপবিত্র অবস্থায় দাফন হবেন সেই আশংকায়, ছুটছেন তিনি রাসুল সাঃ এর কাছে স্বামীর গোসলের অনুমতির জন্য!

গোসল ইসলামি শরীয়ত মোতাবেক পবিত্রতা অর্জনের সবচেয়ে উত্তম পদ্ধতি। সহজ ভাবে পবিত্রতা অর্জনের উদ্দেশ্যে সমস্ত শরীর পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলার নাম ই গোসল। তবে পবিত্রতা অর্জনের জন্য গোসলের সময় অবশ্যই গোসলের ফরযগুলো আদায় করে নিতে হবে।
একটা মজার মাসআলা শেয়ার করতে চাই, গোসলের পূর্বে ওযু করা মুস্তাহাব এবং ওযু করলেই গোসলের ফরয সমূহ আদায় হয়ে যাবে কিন্তু গোসল করার পর ওযু করা মাকরূহ কারন তাতে পানির অপচয় হয়।

স্ত্রী যখন স্বামীর গোসল নিয়ে চিন্তিত, সাহাবারা যখন সহযোদ্ধার লাশ খুজে হয়রান, তখন রাসুল সাঃ দেখলেন এক অভুতপূর্ব দৃশ্য! এই দৃশ্য শুধু তিনিই তো দেখবেন কারন তিনিই তো সাইয়্যেদুল কায়েনাত! রাসুল সাঃ বললেন তার স্ত্রী কে ডাকতে, স্ত্রী আসলেন, সাহাবারা আসলেন রাসুল সাঃ জিজ্ঞেস করলেন : কি করেছিল তোমার স্বামী? স্ত্রী সসংকোচে জবাব দিলেন আমি জানি না! আমি শুধু জানি তিনি আমার সাথে মিলিত হয়েছিলেন কিন্তু গোসল করার সুযোগ পাননি , শহীদদের গোসল দেয়া হয় না! কিন্তু আমি চাই তার গোসল দেয়া হোক!
রাসুল সাঃ বললেন তার আর দরকার নাই! তোমরা জান আমি কি দেখেছি? আমি দেখেছি আসমান ও জমিনের মাঝে ফেরেশতারা রুপার পাত্রে জান্নাতের পানি নিয়ে এক শহীদ কে গোসল দিয়েছে! যাও তোমরা তাকে নিয়ে আস! সাহাবারা আনতে গেলেন প্রিয় সহযোদ্ধা কে এক ইতিহাসের সাক্ষী হয়ে রইলেন সবাই, কারন সেই শহীদের দাড়ি তখন ও সিক্ত!
জান্নাতি পানিতে সিক্ত!!

আল্লাহ তায়ালা তাকে এমন মর্যাদা দান করলেন যা আর কাউকে তিনি দেননি! আর দিবেন ই না বা কেন? যে আল্লাহর জন্য সবকিছু ত্যাগ করেছিল, রাসুলের ভালবাসায় জীবন দিয়েছিল এমন মর্যাদা তো তার ই প্রাপ্য! আর এই জন্যই তাকে বলা হয় গাসিলুল মালায়িকাহ!

বলতে কি পারবেন, তিনি কে ছিলেন?

*




0 Comments 301 Views
Comment

© FriendsDiary.NeT 2009- 2022